বুধবার, ০৩-জুন-২০২০ ইং | দুপুর : ০২:৪২:৪৩ | আর্কাইভ

বেড়েই চলেছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা

তারিখ: ২০২০-০৪-২৪ ১১:৫১:২১ | ক্যাটেগরী: আন্তর্জাতিক | পঠিত: ৫১ বার

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যায় কোনোমতেই রাশ টানা যাচ্ছে না। যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। ওদিকে পশ্চিম ইউরোপের দেশগুলোতে সংক্রমন ও মৃত্যুর হার সামান্য কমলেও সেটি ক্রমান্বয়ে কমবে কিনা সেটি বিশেষজ্ঞরাও বলতে পারছেন না। ওয়ার্ল্ডোমিটারের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী বিশ্বে আক্রান্তের সংখ্যা দাড়িয়েছে ২৬ লাখ ৬১ হাজার ৫১৮ জনে। মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৮৫ হাজার ৫০৪ জনের । আর সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৭ লাখ ৩০ হাজার ৮৪৩ জন।

যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে আরও ৪৪ হাজার ৫৭৫ জন। অপরদিকে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৮১৭ জনের। দেশটির সেন্টার্স ফর ডিজেজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনসনের (সিডিসি) তথ্য অনুযায়ী, দেশটিতে নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৮ লাখ ৪৯ হাজার ৯৪ জন। অপরদিকে দেশটিতে করোনায় প্রাণ হারিয়েছে মোট ৪৭ হাজার ৬৮৪ জন। আশার কথা, ইতোমধ্যেই প্রানঘাতী এই ভাইরাস থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছে ৮৪ হাজার ৫০ জন। তবে এখনও আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছে ১৪ হাজার ১৬ জন। তারা হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যায় সবদেশের শীর্ষে অবস্থান করছে যুক্তরাষ্ট্র। করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যায় যুক্তরাষ্ট্রের ধারে কাছে নেই কোনো দেশ। যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি অঙ্গরাজ্যেই করোনার প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে। তবে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্য। অন্যান্য অঙ্গরাজ্যের তুলনায় সেখানেই করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা সবচেয়ে বেশি।

গত কয়েক সপ্তাহে করোনাভাইরাস মহামারিতে মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে স্পেন। আক্রান্তের সংখ্যায় ইউরোপে সবার শীর্ষে তারা। এ অঞ্চলে মৃত্যুতে ইতালি শীর্ষে থাকলেও খুব একটা পিছিয়ে নেই স্পেনও। ইতোমধ্যেই দেশটিতে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ২২ হাজার ১৫৭ জনে পৌছেছে। বৃহস্পতিবার স্পেনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে আরও ৪৪০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। এর আগের দিন সেখানে ৪৩৫ জন মৃত্যুর খবর জানিয়েছিল কর্তৃপক্ষ। দেশটিতে একদিনে নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছেন আরও প্রায় পাঁচ হাজার। গতকাল সন্ধা পর্যন্ত সেখানে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ছিল ২ লাখ ১৩ হাজার ২৪ জন। তবে আক্রান্তদের মধ্যে ৮৯ হাজার ২৫০ জন মানুষ সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন।

এদিকে করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে জরুরি অবস্থার সময় আবারও বাড়িয়েছে স্পেন। আগামী ৯ মে পর্যন্ত দেশটিতে জরুরি অবস্থা জারি থাকবে। সে পর্যন্ত লোকজনকে বাড়ির বাইরে বের না হওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ফলে প্রায় আট সপ্তাহ ধরে স্পেনের লোকজনকে অবরুদ্ধ থাকতে হচ্ছে।
জার্মানিতে করোনাভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে আরও ২ হাজার ৩৫২ জন। দেশটির সংক্রামক রোগ বিষয়ক সংস্থা রবার্ট কোচ ইন্সটিটিউট (আরকেআই) জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৫১ হাজার ২২। দেশটিতে নতুন করে করোনায় প্রাণ হারিয়েছে আরও ২১৫ জন। ফলে এখন পর্যন্ত করোনায় মারা গেছে ৫ হাজার ৩৩৪ জন। গত তিন ধরে দেশটিতে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা আবারও বাড়তে শুরু করেছে। তবে ইতোমধ্যেই করোনা থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছে ১ লাখ ৩ হাজার ৩শ জন। তবে ২ হাজার ৯০৮ জনের অবস্থা বেশ আশঙ্কাজনক। তারা এখনও চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এদিকে মালয়েশিয়ায় ধীরে ধীরে কমে আসছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ। ইতোমধ্যেই দেশটিতে আক্রান্ত রোগীদের অর্ধেকের বেশিই সুস্থ হয়ে উঠেছেন বলে জানিয়েছেন মালয়েশীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিশামুদ্দিন হুসেইন। বৃহস্পতিবার আসিয়ান দেশগুলোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও-এর সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে তিনি এ তথ্য জানান। হিশামুদ্দিন বলেন, মালয়েশিয়ায় এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ৫৩২ জন। এদের মধ্যে ৩ হাজার ৪৫২ জনই সুস্থ হয়ে উঠেছেন। দেশটিতে করোনায় আক্রান্তের হার মাত্র ১ দশমিক ৬ শতাংশ বলেও জানান তিনি।

সূত্র: বিবিসি, সিএনএন, ওয়ার্ল্ডওমিটারসডটইনফো

তারিখ সিলেক্ট করে খুজুন

A PHP Error was encountered

Severity: Core Warning

Message: PHP Startup: Unable to load dynamic library '/opt/cpanel/ea-php56/root/usr/lib64/php/modules/pdo_mysql.so' - /opt/cpanel/ea-php56/root/usr/lib64/php/modules/pdo_mysql.so: cannot open shared object file: No such file or directory

Filename: Unknown

Line Number: 0

Backtrace: