বৃহঃবার, ২৫-এপ্রিল-২০১৯ ইং | সকাল : ০৬:৩৯:৫৫ | আর্কাইভ

মেজাজ হারালেন ধোনি, গুরু অপরাধে লঘু শাস্তি!

তারিখ: ২০১৯-০৪-১৩ ০১:২৬:১৮ | ক্যাটেগরী: খেলা | পঠিত: ২৭ বার

মেজাজ হারালেন ‘ক্যাপ্টেন কুল’। আর সেটা এমন পর্যায়ে পৌঁছাল যে জরিমানা পর্যন্ত গুণতে হলো মহেন্দ্র সিং ধোনিকে। আইপিএলে রাজস্থান রয়্যালসের বিরুদ্ধে ম্যাচের শেষ ওভারে ‘নো বল’ বিতর্কে মাঠে ঢুকে আম্পায়ারের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়ার শাস্তিস্বরূপ চেন্নাই সুপার কিংস অধিনায়ককে ম্যাচ ফি’র ৫০ শতাংশ জরিমানা ধার্য করেছে আইপিএল কমিটি। টুর্নামেন্টের নিয়ম অনুসারে ‘লেভেল ২’ ধারায় অভিযুক্ত হন ধোনি। তবে অনেকে বলছেন, অপরাধের গুরুত্ব অনুসারে লঘু শাস্তিতেই পার পেয়ে গেলেন মাহি।

জয়পুরের সোয়াই মান সিং স্টেডিয়ামে প্রথমে ব্যাটিং করে রাজস্থান রয়্যালস ৭ উইকেটে ১৫১ রান তোলে। জবাবে ২৪ রানের মধ্যে চার উইকেট হারিয়ে প্রবল চাপে পড়ে যায় চেন্নাই সুপার কিংস। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন ধোনি ও অম্বাতি রায়াডু জুটি। পঞ্চম উইকেটে ৯৫ রান যোগ করে নাটকীয় জয়ের মঞ্চ গড়ে তোলেন তারা। ৪৭ বলে ৫৭ রান করে রায়াডু ফিরে যাওয়ার পর একা লড়ে যাচ্ছিলেন ধোনি। শেষ ওভারে সিএসকে’র প্রয়োজন ছিল ১৮ রান। বেন স্টোকসের করা সেই ওভারের তৃতীয় বলে আউট হয়ে ফেরেন ধোনি (৪৩ বলে ৫৮)। জয়ের জন্য শেষ তিন বলে ৮ রান দরকার ছিল চেন্নাইয়ের। স্ট্রাইকে মিচেল স্যান্টনার, অন্য প্রান্তে রবীন্দ্র জাদেজা।

 

স্টোকসের চতুর্থ ডেলিভারিটি ছিল ফুল টস। প্রায় বুক সমান উচ্চতার জন্য প্রথমে ‘নো বল’ ডেকেছিলেন আম্পায়ার উলহাস গান্ধে। কিন্তু স্কোয়ার লেগে দাঁড়িয়ে থাকা তার সহকর্মী ব্রুস অক্সেনফোর্ড সিদ্ধান্তটি বাতিল করে দেন। দুই ব্যাটসম্যান তৎক্ষণাৎ আম্পায়ারদের কাছে এ নিয়ে আবেদন জানান। কিন্তু তাতেও আম্পায়ারদের সিদ্ধান্তে অটল থাকতে দেখে ডাগ-আউট থেকে সটান মাঠে ঢুকে পড়েন সিএসকে অধিনায়ক ধোনি। ‘নো বল’ ডেকেও কেন তা প্রত্যাখান করা হলো, তা নিয়ে আম্পায়ারদের সঙ্গে তার জোর তর্ক-বিতর্ক চলে। বেশ কয়েক মিনিট খেলা বন্ধ থাকে। কিন্তু লাভ হয়নি। আম্পায়াররা তাদের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেননি। বলটা বৈধ ডেলিভারি হিসেবেই গৃহীত হয়। যাইহোক শেষ বলে চেন্নাইয়ের জয়ের জন্য দরকার ছিল তিন রান।

প্রবল স্নায়ুর চাপ সামলে শেষ বলে ছক্কা হাঁকিয়ে দলকে নাটকীয় জয় এনে দেন স্যান্টনার (৩ বলে অপরাজিত ১০)। ৪ উইকেটে জিতলেও অখেলোয়াড়োচিত আচরণের জন্য শাস্তির কবলে পড়েন ধোনি।

মাঠে পরিস্থিতি যাই হোক না কেন, মাথা ঠান্ডা রাখার জন্য বিশ্বজোড়া খ্যাতি রয়েছে ধোনির। কিন্তু বৃহস্পতিবার দেখা গেল অন্য ধোনিকে। রাজস্থানের বিরুদ্ধে তার আচরণ নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রাক্তনরাও। যে ভাবে ম্যাচ চলাকালীন মাঠে ঢুকে আম্পায়ারদের সঙ্গে বিতর্কে জড়িয়েছেন তিনি, তা মেনে নিতে পারছেন না অনেকেই।

 

সাবেক ক্রিকেটার সঞ্জয় মঞ্জরেকর বলছেন, ‘আমি সব সময়ই ধোনির ভক্ত। কিন্তু এই ম্যাচে ও যা করেছে, তা নিয়মবিরুদ্ধ। ধোনি ভাগ্যবান যে স্রেফ জরিমানা দিয়েই পার পেয়ে গেছে।’ ইংল্যান্ডের সাবেক অধিনায়ক মাইকেল ভন আরো কড়া সমালোচনার সুরে জানিয়েছেন, ‘দলের প্রতি ধোনির দায়বদ্ধতা সম্পর্কে আমাদের স্পষ্ট ধারণা রয়েছে। তাই বলে তুমি মাঠে ঢুকে এভাবে আম্পায়ারের সঙ্গে তর্ক করতে পার না। অধিনায়ক হিসেবে একটা খারাপ দৃষ্টান্ত স্থাপন করল সে।’

অস্ট্রেলিয়ার সাবেক তারকা মার্ক ওয়া নিজের টুইটার পেজে লিখেছেন, ‘আমি জানি, আইপিএলে অধিনায়কদের ওপর প্রচুর চাপ থাকে। কিন্তু সে জন্য খেলার স্পিরিট নষ্ট করাটা ঠিক নয়। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের অধিনায়ক অশ্বিনের মানকাডিং বিতর্কের পর এবার ধোনির মাঠে ঢুকে আম্পায়ারের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়া মোটেই মেনে নেওয়া যায় না।’

তারিখ সিলেক্ট করে খুজুন