ঢাকা ০৯:১৮ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বিএনপি নেতা এমরান সালেহ প্রিন্স ৩ দিনের রিমান্ডে

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৬:৫১:১৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ৫ নভেম্বর ২০২৩
  • ৫৫ বার পড়া হয়েছে

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহকে (প্রিন্স) তিন দিন রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের আবেদন মঞ্জুর করেছেন আদালত। ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেটের (সিএমএম) আদালত রোববার এ আদেশ দেন।

ঢাকায় গত ২৮ অক্টোবর সংঘর্ষের ঘটনায় পল্টন থানায় করা মামলায় এমরান সালেহ প্রিন্সকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে আজ রোববার আদালতে হাজির করা হয়। পুলিশ তাঁকে ১০ দিন রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি চেয়ে আবেদন করে। অপর দিকে এমরান সালেহর আইনজীবীরা তাঁর রিমান্ড আবেদন বাতিল করে জামিন চান।

এমরান সালেহর আইনজীবীরা আদালতকে বলেন, তাঁদের মক্কেলের স্ত্রী গুরুতর অসুস্থ। এমরান নিজেও অসুস্থ। ২৮ অক্টোবর নয়াপল্টনে বিএনপির সমাবেশের সময় তিনি মঞ্চে ছিলেন। সংঘর্ষের সঙ্গে তিনি জড়িত নন। রাজনৈতিক কারণে তাঁকে এই মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে। উভয় পক্ষের শুনানি নিয়ে আদালত এমরান সালেহ প্রিন্সের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে গতকাল শনিবার এমরান সালেহকে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) পরিচয়ে আটক করা হয়। গত বৃহস্পতিবার রাতে রাজধানীর গুলশান থেকে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

২৮ অক্টোবর নয়াপল্টনে বিএনপির মহাসমাবেশ ছিল। এই সমাবেশ কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে দলটির নেতা–কর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় করা মামলায় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বেশ কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে

জনপ্রিয় সংবাদ

পিটার হাসকে হুমকিদাতা ইউপি চেয়ারম্যান বরখাস্ত

বিএনপি নেতা এমরান সালেহ প্রিন্স ৩ দিনের রিমান্ডে

আপডেট সময় ০৬:৫১:১৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ৫ নভেম্বর ২০২৩

বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহকে (প্রিন্স) তিন দিন রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের আবেদন মঞ্জুর করেছেন আদালত। ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেটের (সিএমএম) আদালত রোববার এ আদেশ দেন।

ঢাকায় গত ২৮ অক্টোবর সংঘর্ষের ঘটনায় পল্টন থানায় করা মামলায় এমরান সালেহ প্রিন্সকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে আজ রোববার আদালতে হাজির করা হয়। পুলিশ তাঁকে ১০ দিন রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি চেয়ে আবেদন করে। অপর দিকে এমরান সালেহর আইনজীবীরা তাঁর রিমান্ড আবেদন বাতিল করে জামিন চান।

এমরান সালেহর আইনজীবীরা আদালতকে বলেন, তাঁদের মক্কেলের স্ত্রী গুরুতর অসুস্থ। এমরান নিজেও অসুস্থ। ২৮ অক্টোবর নয়াপল্টনে বিএনপির সমাবেশের সময় তিনি মঞ্চে ছিলেন। সংঘর্ষের সঙ্গে তিনি জড়িত নন। রাজনৈতিক কারণে তাঁকে এই মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে। উভয় পক্ষের শুনানি নিয়ে আদালত এমরান সালেহ প্রিন্সের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে গতকাল শনিবার এমরান সালেহকে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) পরিচয়ে আটক করা হয়। গত বৃহস্পতিবার রাতে রাজধানীর গুলশান থেকে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

২৮ অক্টোবর নয়াপল্টনে বিএনপির মহাসমাবেশ ছিল। এই সমাবেশ কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে দলটির নেতা–কর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় করা মামলায় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বেশ কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে