ঢাকা ১১:৫৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাংলাদেশের কাছে আমাদের হারা উচিত হয়নি: নবী

বাংলাদেশের কাছে আমাদের হারা উচিত হয়নি: নবী

চলমান বিশ্বকাপে বাংলাদেশের বিপক্ষে পরাজয় দিয়ে আসর শুরু করে আফগানিস্তান। তবে সময়ের সঙ্গে নিজেদের চেনা ফর্মে ফিরে আসে দলটি। একে একে হারায় আসরের শক্তিশালী দুই দল ইংল্যান্ড ও পাকিস্তানকে। সবশেষ ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়ের পর বাংলাদেশের কাছে হারের জন্য অভিজ্ঞ আফগান তারকা মোহাম্মাদ নবীর কণ্ঠে ঝরে পড়লো হতাশা।

ম্যাচ শেষে কথা বলতে এসে নবী বলেন, ‘পুরো আফগানিস্তানের জন্য (পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়) বড় মুহূর্ত। আমরা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে আটটি ম্যাচ খেলেছি। এর মধ্যে একমাত্র জয়টি বড় ইভেন্টে। এটি একটি সুন্দর মুহূর্ত। আমরা ইংল্যান্ডকে হারিয়েছি, এখন পাকিস্তানকে। দল এখন আত্মবিশ্বাসী।’

শেষের দিকে বাংলাদেশের বিপক্ষে হার নিয়ে আফসোস করলেন সাবেক আফগান অধিনায়ক, ‘বাংলাদেশের বিপক্ষে আমাদের হারানো উচিত হয়নি। কিন্তু এখন আমরা টুর্নামেন্টের মাঝপথে। এখনো সেমিফাইনাল সম্ভব। আমরা চেন্নাইতে যেমন সমর্থন পেয়েছি, আশাকরি পুনেতেও পাব।’

আসরে এখন পর্যন্ত ৫ ম্যাচ খেলেছে আফগানিস্তান। এর মধ্যে ৩ হারের বিপরীতে তুলে নিয়েছে ২ জয়। তাতে পয়েন্ট টেবিলেও বেশ ভালো অবস্থানে আছে দলটি। তারা পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ডের মতো দলকে। নবীর কথাতে সামনেও ভালো কিছুর প্রত্যাশা।

আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ৬ উইকেটে হেরেছিল আফগানিস্তান। পরের ম্যাচে ভারতের বিপক্ষেও ৮ উইকেটের বিশাল পরাজয়। অবশেষে তৃতীয় ম্যাচে এসে জয়ের মুখ দেখে দলটি। ইংল্যান্ডকে হারায় ৬৯ রানে। চতুর্থ ম্যাচে নিউ জিল্যান্ডের কাছে হারলেও পঞ্চম ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয় তুলে নেয় ৮ উইকেটে।

বাংলাদেশের কাছে আমাদের হারা উচিত হয়নি: নবী

আপডেট সময় ০৯:৪৬:২৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৪ অক্টোবর ২০২৩

চলমান বিশ্বকাপে বাংলাদেশের বিপক্ষে পরাজয় দিয়ে আসর শুরু করে আফগানিস্তান। তবে সময়ের সঙ্গে নিজেদের চেনা ফর্মে ফিরে আসে দলটি। একে একে হারায় আসরের শক্তিশালী দুই দল ইংল্যান্ড ও পাকিস্তানকে। সবশেষ ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়ের পর বাংলাদেশের কাছে হারের জন্য অভিজ্ঞ আফগান তারকা মোহাম্মাদ নবীর কণ্ঠে ঝরে পড়লো হতাশা।

ম্যাচ শেষে কথা বলতে এসে নবী বলেন, ‘পুরো আফগানিস্তানের জন্য (পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়) বড় মুহূর্ত। আমরা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে আটটি ম্যাচ খেলেছি। এর মধ্যে একমাত্র জয়টি বড় ইভেন্টে। এটি একটি সুন্দর মুহূর্ত। আমরা ইংল্যান্ডকে হারিয়েছি, এখন পাকিস্তানকে। দল এখন আত্মবিশ্বাসী।’

শেষের দিকে বাংলাদেশের বিপক্ষে হার নিয়ে আফসোস করলেন সাবেক আফগান অধিনায়ক, ‘বাংলাদেশের বিপক্ষে আমাদের হারানো উচিত হয়নি। কিন্তু এখন আমরা টুর্নামেন্টের মাঝপথে। এখনো সেমিফাইনাল সম্ভব। আমরা চেন্নাইতে যেমন সমর্থন পেয়েছি, আশাকরি পুনেতেও পাব।’

আসরে এখন পর্যন্ত ৫ ম্যাচ খেলেছে আফগানিস্তান। এর মধ্যে ৩ হারের বিপরীতে তুলে নিয়েছে ২ জয়। তাতে পয়েন্ট টেবিলেও বেশ ভালো অবস্থানে আছে দলটি। তারা পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ডের মতো দলকে। নবীর কথাতে সামনেও ভালো কিছুর প্রত্যাশা।

আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ৬ উইকেটে হেরেছিল আফগানিস্তান। পরের ম্যাচে ভারতের বিপক্ষেও ৮ উইকেটের বিশাল পরাজয়। অবশেষে তৃতীয় ম্যাচে এসে জয়ের মুখ দেখে দলটি। ইংল্যান্ডকে হারায় ৬৯ রানে। চতুর্থ ম্যাচে নিউ জিল্যান্ডের কাছে হারলেও পঞ্চম ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয় তুলে নেয় ৮ উইকেটে।