ঢাকা ০৭:২৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

হিরো আলমের জন্মদিনে কেক উপহার দিলেন ডিবি প্রধান

হিরো আলমের জন্মদিনে কেক উপহার দিলেন ডিবি প্রধান

জন্মদিন উপলক্ষে আলোচিত কনটেন্ট ক্রিয়েটর হিরো আলমকে কেক উপহার দিলেন মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ। আজ (২২ অক্টোবর) হিরো আলমের জন্মদিন। মূলত জন্মদিন পালন করতেই দুপুরে তিনি ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) কার্যালয়ে যান। তাঁর দাবি, ডিবি কার্যালয়ে তাঁকে ডেকে নেন ডিবি প্রধান।

তারপর সেখানে তিনি হিরো আলমকে কেক উপহার দেন। রবিবার বিকেলে এ তথ্য নিজেই জানিয়েছেন হিরো আলম। তিনি বলেন, ‘জন্মদিন উপলক্ষে শুভেচ্ছা জানানোর জন্য ডিবি প্রধান হারুন স্যার আমাকে ডেকেছিলেন। আমার জন্মদিন উপলক্ষে ডিবি অফিসে হারুন স্যার কেক কেটেছেন।

আমাকে মিষ্টিও খাইয়েছেন। ভালো সময় কেটেছে। হিরো আলম জানান, গত বছরের জুলাই থেকে ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদের সঙ্গে পরিচয় হিরো আলমের। যদিও এই পুলিশ কর্মকর্তার সঙ্গে হিরো আলমের পরিচয় ভালো ছিল না।

মূলত বিকৃতভাবে রবীন্দ্রসংগীত গাওয়ার জন্য তাঁকে ডেকে নেওয়া হয়। তারপর তাঁর কাছ থেকে মুচলেকা নেওয়া হয়- আর কখনোই তিনি বিকৃত করে রবীন্দ্রসংগীত গাইবেন না। ওই ঘটনার পর ডিবি প্রধানের কাছে প্রায়ই বিভিন্ন অভিযোগ এবং সমস্যা নিয়ে হাজির হতে দেখা গেছে হিরো আলমকে। মাঝেমধ্যে দুপুরে ডিবি অফিসে খেতেও দেখা যায় তাঁকে।

জাবিতে পুলিশের সঙ্গে শিক্ষার্থীদের সংঘর্ষ চলছে

হিরো আলমের জন্মদিনে কেক উপহার দিলেন ডিবি প্রধান

আপডেট সময় ১০:৪০:২৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২২ অক্টোবর ২০২৩

জন্মদিন উপলক্ষে আলোচিত কনটেন্ট ক্রিয়েটর হিরো আলমকে কেক উপহার দিলেন মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ। আজ (২২ অক্টোবর) হিরো আলমের জন্মদিন। মূলত জন্মদিন পালন করতেই দুপুরে তিনি ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) কার্যালয়ে যান। তাঁর দাবি, ডিবি কার্যালয়ে তাঁকে ডেকে নেন ডিবি প্রধান।

তারপর সেখানে তিনি হিরো আলমকে কেক উপহার দেন। রবিবার বিকেলে এ তথ্য নিজেই জানিয়েছেন হিরো আলম। তিনি বলেন, ‘জন্মদিন উপলক্ষে শুভেচ্ছা জানানোর জন্য ডিবি প্রধান হারুন স্যার আমাকে ডেকেছিলেন। আমার জন্মদিন উপলক্ষে ডিবি অফিসে হারুন স্যার কেক কেটেছেন।

আমাকে মিষ্টিও খাইয়েছেন। ভালো সময় কেটেছে। হিরো আলম জানান, গত বছরের জুলাই থেকে ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদের সঙ্গে পরিচয় হিরো আলমের। যদিও এই পুলিশ কর্মকর্তার সঙ্গে হিরো আলমের পরিচয় ভালো ছিল না।

মূলত বিকৃতভাবে রবীন্দ্রসংগীত গাওয়ার জন্য তাঁকে ডেকে নেওয়া হয়। তারপর তাঁর কাছ থেকে মুচলেকা নেওয়া হয়- আর কখনোই তিনি বিকৃত করে রবীন্দ্রসংগীত গাইবেন না। ওই ঘটনার পর ডিবি প্রধানের কাছে প্রায়ই বিভিন্ন অভিযোগ এবং সমস্যা নিয়ে হাজির হতে দেখা গেছে হিরো আলমকে। মাঝেমধ্যে দুপুরে ডিবি অফিসে খেতেও দেখা যায় তাঁকে।