ঢাকা ০৫:২২ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দেশে নির্বাচনের পরিবেশ নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়নি: ইসি সচিব

বাংলাদেশে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণ রয়েছে এমন দাবি করে নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিবালয়ের সচিব মো. জাহাংগীর আলম বলেছেন, দেশের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি। পরবর্তীতে যদি কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়, তাহলে কমিশন আইনিভাবে সব ধরনের কার্যক্রম অব্যাহত রাখবে।

মঙ্গলবার (১৭ অক্টোবর) সামাজিক সংগঠন সম্প্রীতির বাংলাদেশের নেতাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। বৈঠকে আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মুক্তিযুদ্ধের বিরোধী শক্তিরা যেন অংশ নিতে না পারে, সেই উদ্যোগ নিতে ইসির কাছে দাবি জানায় সংগঠনটি। একইসঙ্গে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা নিশ্চিতের আহ্বানও জানান সংগঠনটির নেতারা।

সংখ্যালঘুরা ভোটে সহিংসতার আশঙ্কা কেন করছে— এ প্রশ্নের ইসি সচিব বলেন, এটা যারা আশঙ্কা করছে তারাই বলতে পারবে। আমাদের পক্ষ থেকে স্পষ্ট করে বলা হচ্ছে যে, বর্তমানে বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি কমিশনের দৃষ্টিতে শান্তিপূর্ণ আছে। এখন পর্যন্ত উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো কোনো পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়নি বলেও কমিশন মনে করছে। পরবর্তী সময়ে কোনো পরিস্থিতির যদি উদ্ভব হয় তবে অবশ্যই কমিশন আইনগতভাবে সব ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

জাহাংগীর আলম বলেন, সম্প্রীতির বাংলাদেশ সংগঠন আমাদের কাছে মোট চারটি প্রস্তাবনা রেখেছে। চারটি প্রস্তাবনার বিষয়ে কমিশন তাদের আশ্বস্ত করেছে যে, সেসব প্রস্তাবনার বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।বৈঠকে সম্প্রীতির বাংলাদেশের সভাপতি পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়সহ ১৩ সদস্যের প্রতিনিধি দল অংশ নেয়। আর ইসির পক্ষ থেকে কয়েকজন কমিশনার এবং ইসি সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এতে অংশ নেন।

সভায় সম্প্রীতি বাংলাদেশের সভাপতি পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়সহ ১৩ সদস্যের প্রতিনিধি দল অংশ নেয়। ইসির পক্ষ থেকে নির্বাচন কমিশনাররা এবং ইসি সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

জনপ্রিয় সংবাদ

দেশে নির্বাচনের পরিবেশ নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়নি: ইসি সচিব

আপডেট সময় ০৫:৪৪:৪০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর ২০২৩

বাংলাদেশে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণ রয়েছে এমন দাবি করে নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিবালয়ের সচিব মো. জাহাংগীর আলম বলেছেন, দেশের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি। পরবর্তীতে যদি কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়, তাহলে কমিশন আইনিভাবে সব ধরনের কার্যক্রম অব্যাহত রাখবে।

মঙ্গলবার (১৭ অক্টোবর) সামাজিক সংগঠন সম্প্রীতির বাংলাদেশের নেতাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। বৈঠকে আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মুক্তিযুদ্ধের বিরোধী শক্তিরা যেন অংশ নিতে না পারে, সেই উদ্যোগ নিতে ইসির কাছে দাবি জানায় সংগঠনটি। একইসঙ্গে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা নিশ্চিতের আহ্বানও জানান সংগঠনটির নেতারা।

সংখ্যালঘুরা ভোটে সহিংসতার আশঙ্কা কেন করছে— এ প্রশ্নের ইসি সচিব বলেন, এটা যারা আশঙ্কা করছে তারাই বলতে পারবে। আমাদের পক্ষ থেকে স্পষ্ট করে বলা হচ্ছে যে, বর্তমানে বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি কমিশনের দৃষ্টিতে শান্তিপূর্ণ আছে। এখন পর্যন্ত উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো কোনো পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়নি বলেও কমিশন মনে করছে। পরবর্তী সময়ে কোনো পরিস্থিতির যদি উদ্ভব হয় তবে অবশ্যই কমিশন আইনগতভাবে সব ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

জাহাংগীর আলম বলেন, সম্প্রীতির বাংলাদেশ সংগঠন আমাদের কাছে মোট চারটি প্রস্তাবনা রেখেছে। চারটি প্রস্তাবনার বিষয়ে কমিশন তাদের আশ্বস্ত করেছে যে, সেসব প্রস্তাবনার বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।বৈঠকে সম্প্রীতির বাংলাদেশের সভাপতি পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়সহ ১৩ সদস্যের প্রতিনিধি দল অংশ নেয়। আর ইসির পক্ষ থেকে কয়েকজন কমিশনার এবং ইসি সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এতে অংশ নেন।

সভায় সম্প্রীতি বাংলাদেশের সভাপতি পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়সহ ১৩ সদস্যের প্রতিনিধি দল অংশ নেয়। ইসির পক্ষ থেকে নির্বাচন কমিশনাররা এবং ইসি সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।